latest

‘ফিক্সিংয়ের দেশ’ শ্রীলঙ্কা নিয়ে ইংল্যান্ডকে বাড়তি সতর্কবার্তা আইসিসির


‘ফিক্সিংয়ের দেশ’ শ্রীলঙ্কা নিয়ে ইংল্যান্ডকে বাড়তি সতর্কবার্তা আইসিসির

পুরো বিশ্ব যখন করোনা সামলাতে ব্যস্ত, আইসিসি তখন ইংলিশদের মনে করিয়ে দিল ফিক্সিংয়ের কথাটাও। ফিক্সিংয়ে ইংলিশদের সংশ্লিষ্টতা অন্যান্য অনেক দেশের চেয়েই কম। কিন্তু জো রুটের দল এখন শ্রীলঙ্কা সফরে, যে দেশে সম্প্রতি ফিক্সিং যেন রীতিমত এক মহামারি। আইসিসি তাই বাড়তি সতর্কতা জানিয়েছে সফরকারী ইংল্যান্ড দলকে। 

'ফিক্সিংয়ের দেশ' শ্রীলঙ্কা নিয়ে ইংল্যান্ডকে বাড়তি সতর্কবার্তা আইসিসির

আইসিসির দুর্নীতি বিরোধী শাখার প্রধান অ্যালেক্স মার্শাল একটি ব্রিটিশ গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, অন্যান্য সিরিজের আগে ক্রিকেটারদের ফিক্সিংয়ের বিষয়ে যেভাবে যতটুকু সতর্ক করা হয়, এবার ইংলিশদের তার চেয়েও বেশি সতর্ক করা হয়েছে। কারণ তারা খেলতে গেছেন শ্রীলঙ্কায়, যেখানে এখন ফিক্সিং অন্যান্য দেশের চেয়ে অনেক বেশি।

Also Read – লজ্জা, ঘৃণায় নিজ দেশের দর্শকদের একহাত নিলেন ল্যাঙ্গার

মার্শাল বলেন, ‘সাধারণত যেকোনো সিরিজের আগেই আমরা ক্রিকেটারদের বলে দেই কী কী করা যাবে বা কী কী করা যাবে না। কিন্তু শ্রীলঙ্কায় খেলা হলে আমরা একটু বাড়তি সতর্ক থাকি। ভালো করে খেলোয়াড়দের বুঝিয়ে দিই, শ্রীলঙ্কায় গত কয়েক মাসে ঠিক কী ধরনের ম্যাচ ফিক্সিং হয়েছে, কোথা থেকে জুয়াড়িরা কাজ চালায়, কীভাবে ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব আসতে পারে। যারা যারা ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব দিতে পারে, তাদের ছবি আমরা দলের সবাইকে দিয়ে দেই।’

ফিক্সিং ইস্যুতে শ্রীলঙ্কায় ক্রিকেটীয় কর্মকাণ্ডে নিষেধাজ্ঞা পেয়েছেন সাবেক কিংবদন্তি ক্রিকেটার সনাথ জয়াসুরিয়া। জয়াসুরিয়ার মত গ্রেটের নাম যখন ফিক্সিং কেলেঙ্কারিতে জড়িয়ে পড়ে, তখন সহজেই বোঝা যায় শ্রীলঙ্কায় ফিক্সিং কতটা রমরমা। মার্শাল বলেন, ‘আমরা সনাথ জয়াসুরিয়াকে নির্বাসিত করেছিলাম। শ্রীলঙ্কায় তিনি বড় এক নাম। ফলে শ্রীলঙ্কায় এখন একটা ভয় তৈরি হয়ে গেছে। শ্রীলঙ্কায় ফিক্সিং এখন ফৌজদারি অপরাধ। ধরা পড়লে জেল হবেই। জুয়াড়িদের পক্ষে এই ঝুঁকি নেওয়াটা এখন কঠিন হয়ে গেছে। কয়েক বছর আগেও আমরা অধিকাংশ অভিযোগ পেতাম শ্রীলঙ্কা থেকে।’

মার্শাল অবশ্য এও বলেছেন, এবার ফিক্সিংয়ের সম্ভাবনা কম। তবে কখন কোথা থেকে প্রস্তাব চলে আসে, কেউই জানেন না। প্রস্তাব এলে তা নাকচ করে দিলেও আছে ফেঁসে যাওয়ার ঝুঁকি, যার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত বাংলাদেশের সাকিব আল হাসান। মার্শাল জানান, ২০১৯ সালের জুলাই থেকে ২০২০ সালের জুলাই পর্যন্ত প্রায় ৫০টির মত অভিযোগ তারা পেয়েছেন শ্রীলঙ্কা থেকে। রুটদের শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে আইসিসির বাড়তি সতর্কতা তাই অযৌক্তিক নয়।

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

 



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *