latest

ছোটদের ক্রিকেটের সাথে বড়দের ক্রিকেটের পার্থক্য বুঝেছেন শামীম


ছোটদের ক্রিকেটের সাথে বড়দের ক্রিকেটের পার্থক্য বুঝেছেন শামীম

শামীম নামে সবাই চেনেন, তবে পুরো নামে সাথে আছে পাটোয়ারি শব্দটাও। সতীর্থদের কাছে তাই শামীম হোসেন পাটোয়ারি হয়ে গেছেন ‘পাটু’ বা ‘পাটু ভাই’। ২০ বছর বয়সী তরুণ এই ক্রিকেটার সদ্য সমাপ্ত বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে জেমকন খুলনার তিন সিনিয়র ক্রিকেটারের সাথে ভাগাভাগি করেছেন ড্রেসিংরুম। মাশরাফি বিন মুর্তজা, সাকিব আল হাসান, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদদের বিনয়ই তার কাছে সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি।

'পাটু ভাই'র কাছে সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি 'সুপারস্টার'দের বিনয়

বন্ধুবৎসল আচরণের জন্য সবসময়ই খ্যাতি মাশরাফির। রিয়াদ, সাকিবরাও জুনিয়রদের জন্য উজাড় করে দেন নিজেদের। এমন একটি দলের অংশ হতে পারা নির্দ্বিধায় বড় প্রাপ্তি শামীমের মত তরুণদের জন্য।

Also Read – ভারতের ব্যাটিং নিয়ে শোয়েবের নির্মম রসিকতা

বিডিক্রিকটাইমের সাথে আলাপকালে শামীম প্রকাশ করলেন তার মুগ্ধতা, ‘দেখলাম এত বড় সুপারস্টার হয়েও জুনিয়রদের সাথে অনেক বন্ধুবৎসল আচরণ করেন। এর থেকে বড় পাওয়া আর কিছু নেই। অনেক সাবলীলভাবে মিশেন, বোঝান। দুইজনই আমাকে অনেক প্রেরণা দিয়েছেন… ‘ইউ আর অ্যা গ্রেট ফিল্ডার’।’

মাশরাফি, সাকিব, রিয়াদ ছাড়াও এই টুর্নামেন্টে ছিলেন তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহিমরা। জাতীয় দলের অন্যান্য তারকারা তো আছেনই। এত বড় খেলোয়াড়দের ভিড়ে শামীম বুঝতে শিখেছেন, ছোটদের ক্রিকেট আর বড়দের ক্রিকেটের পার্থক্য।

তিনি বলেন, ‘বড় টুর্নামেন্টে একটু চাপ থাকবেই। এটা প্রায় বিপিএলের মত, আর আমরা এতদিন ছিলাম অনূর্ধ্ব-১৯ এ। এখানে চাপ অন্যরকম থাকবেই, অনেক সিনিয়র ও অভিজ্ঞ খেলোয়াড় ছিলেন।’

আলাপকালে শামীম জানান তার ‘পাটু’ নামের রহস্য। কীভাবে এলো এই নাচ? দলের উদযাপন আর বারবিকিউ পার্টিতে তার পটু নাচই বা কেন?

‘পাটু ভাই’ বলেন, ‘সিনিয়ররা দুষ্টামি করে ডাকেন। পাটু নামটা দিয়েছিলেন আমাদের বিকেএসপির কোচ মন্টু স্যার। ওখান থেকেই পাটোয়ারি থেকে পাটু বলে ডাকে। ক্রিকেটারদের অন্য একটা জীবনও আছে। সেটা উপভোগ করতে হয়। নাচ আসলে এটাই।’

বল বাই বল লাইভ স্কোর পেতে আর নয় বিদেশি অ্যাপ। বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবর এবং বল বাই বল লাইভ স্কোর আপনার মুঠোফোনে পেতে এখনি প্লে-স্টোর থেকে BDCricTime সার্চ করে ডাউনলোড করুন বাংলাদেশের নাম্বার ওয়ান ক্রিকেট অ্যাপটি। অথবা ডাউনলোড করতে ক্লিক করুন এখানে। ভালো লাগলে অবশ্যই রেটিং দিয়ে উৎসাহী করুন।

 



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *