দুধ-মিছরির স্বাস্থ্য উপকারিতা | ডিএমপি নিউজ


দুধ পুষ্টিকর খাবার। এতে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন, ক্যালসিয়াম, নিয়াসিন, ফসফরাস, ম্যাগনেসিয়াম, আয়োডিন, খনিজ পদার্থ, চর্বি, শক্তি, রাইবোফ্লাভিন (ভিটামিন বি-২) ছাড়াও ভিটামিন এ, ডি, কে এবং ই ইত্যাদি উপাদান রয়েছে। দুধ ও মিছরি একসঙ্গে খাওয়ার অনেক উপকারিতা রয়েছে। মিছরি দুধে অ্যান্টাসিড এজেন্ট হিসাবে কাজ করে।

আসুন তাহলে জেনে নিন দুধ ও মিছরি একসঙ্গে খাওয়ার স্বাস্থ্য উপকারিতা সম্পর্কে-

– হালকা গরম দুধের সঙ্গে মিছরি মিশিয়ে খেলে অনিদ্রা দূর হয়। প্রতিদিন রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে এটি পান করতে হবে।

– মেজাজ নিয়ন্ত্রণ করার পাশাপাশি মনকে শান্ত রাখতে সহায়তা করে। হতাশা থেকে মুক্তি পেতেও খুব উপকারী বলে বিবেচিত।

– কম্পিউটার, ল্যাপটপ, ট্যাবে যারা সারাদিন কাজ করেন; তাদের জন্য দুধ-মিছরির মিশ্রণটি খুব উপকারী। এটি চোখকে সুস্থ রাখে।

– হজমের সমস্যা দূর করতে দুধ-মিছরির মিশ্রণটি খুব জরুরি। এটি গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা, কোষ্ঠকাঠিন্য দূর এবং হজমে উন্নতি করতে সহায়তা করে। অ্যাসিডিটির সমস্যায় ঠান্ডা দুধে মিছরি মিশিয়ে খেলে উপকার মিলবে।

– গরম দুধে জাফরান ও মিছরি মিশিয়ে পান করলে শরীরে অ্যানার্জি আসে। এ ছাড়াও শরীরে হিমোগ্লোবিনের পরিমাণ বাড়ে।

– শরীরের রক্ত সঞ্চালনকে আরও উন্নত করে দুধ-মিছরি। এতে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ে।

– পুরুষের যৌন বিকলতা দূর করতেও পানীয়টি বেশ কার্যকর।

– ঠান্ডা আবহাওয়ায় এক গ্লাস গরম দুধ ও মিছরি পান করলে সর্দি-কাশি থেকে উপশম ঘটবে। দিনে দু’বার স্বাস্থ্যকর পানীয়টি শীতে বিভিন্ন রোগ থেকে মুক্তি দেবে।





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *