‘জিয়ার খেতাব বাতিলের চেষ্টা করে বঙ্গবন্ধুকে অপমান করছে সরকার’


স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে দেওয়া খেতাব বাতিলের চেষ্টা করে সরকার বঙ্গবন্ধুকেই অপমান আর অসম্মান করছে বলে মন্তব্য করেছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী।

শনিবার (২০ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় প্রেস ক্লাবে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সিনিয়র সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেনের নতুন গ্রন্থ ‘করোনাকালে বাংলাদেশ’র প্রকাশনা অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন। অনুষ্ঠানটির আয়োজন করেন প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান দ্য ইউনিভার্সেল একাডেমি।

ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, ‘পুরনো একটি আইনের ৪০১ ধারার ব্যবহার করে সেনাপ্রধানের দুই ভাইকে অবমুক্তি দেওয়া হয়েছে। গত কয়েকশ বছরের ইতিহাসে এমন ঘটনা এটাই প্রথম।’

‘জিয়ার খেতাব বাতিলের চেষ্টা করে বঙ্গবন্ধুকে অপমান করছে সরকার’

তিনি বলেন, ‘বর্তমান সরকার হঠাৎ জিয়াউর রহমানকে দেওয়া মুক্তিযুদ্ধের সম্মানসূচক খেতাব বাতিলের চেষ্টা করছে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মুক্তিযুদ্ধের সাহসী অবদান ও কৃতিত্বের জন্য জিয়াউর রহমানকে এই পদবি দিয়েছিলেন। অথচ জিয়াউর রহমানকে দেওয়া সে পদবি বাতিলের চেষ্টা করে সরকার বঙ্গবন্ধুকেই অপমান আর অসম্মান করছে। তাই এসব কর্মকাণ্ড পাগলামির নামান্তর বলে আমি মনে করি।’

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী আরও বলেন, ‘আল-জাজিরায় প্রকাশিত প্রতিবেদনটি ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার জন্য ইজরায়েলের গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদ এবং ভারতের র জিয়াউর রহমানের মুক্তিযুদ্ধের সম্মানসূচক উপাধি অপসারণের চেষ্টা চালাচ্ছে।’

অধ্যাপক ড. মাহবুব উল্লাহের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য প্রফেসর ড. আনোয়ার উল্লাহ চৌধুরী, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য অধ্যাপক ডা. নজরুল ইসলাম, সাংবাদিক রিয়াজ উদ্দিন আহমেদ, বিএমএ’র মহাসচিব ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আবদাল আহমদসহ অন্যরা।

সারাবাংলা/কেআইএফ/টিআর





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *