৩৬ রানে অল-আউটে লজ্জার কিছু নেই : কোহলি


৩৬ রানে অল-আউটে লজ্জার কিছু নেই : কোহলি

অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে গোলাপি বলের টেস্টে ৩৬ রানে অল-আউট হয়ে ব্যাপক সমলোচনার শিকার হয়েছে কোহলি এবং তার দল। ফের একবার গোলাপি বলের টেস্ট খেলতে নামছে ভারত। দলের অধিনায়ক মনে করিয়ে দিলেন বারবার ৩৬ রানে অল-আউট হবে না ভারত।

এই তো কয়েক মাস আগের কথা- টেস্ট ক্রিকেটে নিজেদের সর্বনিম্ন স্কোরে অল আউট হয়েছিল ভারত দল। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে গোলাপি বলের টেস্টে মাত্র ৩৬ রানেই গুটিয়ে যায় ভারত। কোহলিদের যেমন ৩৬ রানে অল-আউট হওয়ার কৃর্তি রয়েছে ঠিক তেমনি টেস্টে ৫৮ রানে অল-আউট হওয়ার কৃর্তি রয়েছে ইংল্যান্ডেরও।

Also Read – নিউজিল্যান্ডে নিজের শতভাগ উজাড় করে দিতে চান সাইফউদ্দিন

২০১৮ সালে অকল্যান্ডে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৫৮ রানে অল-আউট হয়েছে ইংল্যান্ড। এবার গোলাপি বলের টেস্ট খেলতে মাঠে নামছে ভারত ও ইংল্যান্ড। গোলাপি বলের টেস্ট বলেই অজিদের বিপক্ষে নিজেদের সর্বনিম্ন স্কোরে অল-আউট হওয়ার প্রসঙ্গ উঠে এসেছে সংবাদ সম্মেলনে। তবে সেটির কড়া জবাব দিয়েছেন ভারতের অধিনায়ক বিরাট কোহলি।

“ওরা যেমন ৫৮ রানে গুটিয়ে গিয়েছে, আমরাও তেমন ৩৬ রানে অল-আউট হয়েছি। এতে লজ্জার কিছু নেই। দুটো দলই কঠিন প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে হেরেছিলাম। তবে ওরাও যেমন রোজ ৫৮ রানে অল আউট হবে না, আমরাও প্রতি টেস্টে ৩৬ রানে গুটিয়ে যাব না। আর সেই টেস্টে হারের পরেও আমরা অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সিরিজ জিতেছিলাম। সেটাও মনে রাখা উচিত। সবাই ভুল থেকে শিখি।”

গোলাপি বলের টেস্টে ভারতের অভিষেক হয়েছিল ২০১৯ সালে বাংলাদেশের বিপক্ষে ইডেনে। আহমেদাবাদের টেস্টের আগে প্রতিপক্ষ বাংলাদেশকে স্মরণ করলেন ভারতের অধিনায়ক। টাইগারদের বিপক্ষেই গোলাপি বলের চ্যালেঞ্জ টের পেয়েছিলেন কোহলি।

“গোলাপি বল অনেক বেশি সুইং করে। দিনের শুরু এবং বিশেষ করে গোধূলির সময় ইনিংস শুরু হলে ব্যাট করা আরও চ্যালেঞ্জ হয়ে যায়। গোলাপি বল যতক্ষণ নতুন থাকবে, ব্যাটসম্যানদের ভোগান্তি আছে। সেই জন্য অবশ্য আমাদের প্রস্তুতিও রয়েছে। ২০১৯ সালে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ইডেনে সেটা বুঝেছিলাম। একে তো চড়া আলো, এর মধ্যে গোলাপি বল সবসময় চকমক করে। এই টেস্টেও স্পিনাররা বড় ভূমিকা নেবে। তবে জোরে বোলারদেরও অগ্রাহ্য করা যাবে না। আমরা সেই ভাবেই প্রস্তুতি নিয়েছি।”



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *