latest

আর্থিক দুর্দশা কাটাতে গাঙ্গুলিকে পাশে চাচ্ছে দক্ষিণ আফ্রিকা


আর্থিক দুর্দশা কাটাতে গাঙ্গুলিকে পাশে চাচ্ছে দক্ষিণ আফ্রিকা

করোনাভাইরাসের কারণে ঘরের মাঠে সিরিজ আয়োজন করতে না পারায় আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ড। এই দুঃসময়ে বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলিরকে পাশে চাচ্ছেন গ্রায়েম স্মিথ।

অন্যান্য দেশগুলো যেখানে করোনার মধ্যে বিভিন্ন প্রোটকল মেনে সিরিজ আয়োজন করছে সেখানে পিছিয়ে রয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা। দলটি কয়েকদিন আগে পাকিস্তান সফর করলেও টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের আগে অস্ট্রেলিয়া দলের সফর করার কথা ছিল দক্ষিণ আফ্রিকায়। অস্ট্রেলিয়া দল সফর করলেও সেই সিরিজ থেকে আর্থিকভাবে লাভবান হওয়ার আশা তৈরি হয়েছে ক্রিকেট দক্ষিণ আফ্রিকার (সিএসএ)।

Also Read – দেড় দিনেই শেষ টেস্ট- আইসিসির কাছ থেকে জবাব চান লয়েড

তবে দক্ষিণ আফ্রিকায় করোনাভাইরসের দ্বিতীয় ঢেওয়ের কারণে সফরটি বাতিল করে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ)। এতে আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়ে দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ড। এটি থেকে কাটিয়ে উঠতে সৌরভ গাঙ্গুলির সহায়তা চেয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট পরামর্শক গ্রায়েম স্মিথ। সেই সাথে ইংল্যান্ডের সঙ্গেও দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ডের সম্পর্কের উন্নয়নের কথা বললেন তিনি।

আমার সাথে সৌরভের বেশ কয়েকবার কথা হয়েছে। তাতে ইতিবাচক সাড়া পাওয়া গেছে। ভারত আমাদের নিয়ে অনেক বেশি চিন্তা করে। আশা করব, আগামী কয়েকটি মৌসুমে ভারতের সাথে আমরা বেশ কিছু সিরিজ খেলতে পারব। পুরো বিষয়টা চূড়ান্ত হবার অপেক্ষায় আছি আমরা। খুব শীঘ্রই সিরিজ নিয়ে আমরা ভালো খবর পাব আশা করছি।”

তিনি আরও যোগ করেন, “টম হ্যারিসন এবং ইসিবি আমাদের পাশে রয়েছে। গত ডিসেম্বরে একদিনের সিরিজ না খেলে ইংল্যান্ড দল যখন আমাদের দেশ থেকে চলে যায়, তারপর ইসিবি আমাদের পাশে থাকে এবং সহায়তা করেছে। যা খুবই প্রশংসনীয়। স্থগিত হওয়া সিরিজের সূচি নতুন করে তৈরিও হয়ে গিয়েছে। এখন চূড়ান্তের অপেক্ষায়।”

অস্ট্রেলিয়া দল সফরটি স্থগিত করায় তাঁদের উপর রাগ ঝেড়েছিলেন স্মিথ। এমনকি অস্ট্রেলিয়ার নামে আইসিসিতে সূচি ভঙ্গের অভিযোগও তুলেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। ফের একবার অস্ট্রেলিয়াকে ধুয়ে দিয়েছেন স্মিথ।

“অস্ট্রেলিয়া সব সময় আমাদের জন্য কাজ কঠিন করেছে। অন্য দুই বোর্ডের (বিসিসিআই ও ইসিবি) সঙ্গে যেভাবে কাজ করেছি, সে রকম কোন কিছুই সম্ভব হয়নি অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে।”



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *