আইসিসির ‘সাম্যবাদী’ নিয়মে ক্ষিপ্ত ভারত


আইসিসির ‘সাম্যবাদী’ নিয়মে ক্ষিপ্ত ভারত

সব দেশ যাতে আইসিসির আসর আয়োজনের সমান সুযোগ পায়, সেজন্য আইসিসি তাদের আয়োজক নির্ধারণের প্রক্রিয়ায় পরিবর্তন আনতে চেয়েছিল। তবে তা পছন্দ হয়নি ভারতের। বিসিসিআই আইসিসির আয়োজক নির্ধারণে নিলাম প্রক্রিয়ার ঘোরতর বিরোধী হয়ে উঠেছে।

আইসিসির 'সাম্যবাদী' নিয়মে ক্ষিপ্ত ভারত

২০২৩ থেকে ২০৩১ সাল পর্যন্ত ৮ বছরে একটি দেশ একটির বেশি আইসিসি আসর আয়োজন করতে পারবে না, সেক্ষেত্রে আসরটি হতে পারে অনূর্ধ্ব-১৯ বা নারী ক্রিকেটও- এমনই নিয়ম করতে চায় আইসিসি। এই পরিকল্পনায় আইসিসি সমর্থন পেয়েছে আয়োজনে পিছিয়ে থাকা দেশগুলোর।

Also Read – চুল নিয়ে ধারাভাষ্যকারের কটূক্তি, রেগে আগুন স্টেইন

এই নিয়মে স্বাগতিক দল বাছাই করা হত নিলামের মাধ্যমে। কিন্তু এই নিলাম প্রক্রিয়ায় দ্বিমত পোষণ করেছে ভারত। বিসিসিআইয়ের পক্ষ থেকে সাফ জানিয়ে দেওয়া হয়েছে- ৮ বছরে একটি দেশের মাত্র একটি টুর্নামেন্ট আয়োজনের এই পদ্ধতিতে ভারত ভেটো দেবে।

বিসিসিআই জানায়, ‘এই প্রস্তাব নাকচ করে দেওয়া হয়েছে। আমরা আশাবাদী ইংল্যান্ড এবং অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট বোর্ডও আমাদের পাশে দাঁড়াবে এবং এই প্রস্তাব মেনে নেবে না।’

বৈশ্বিক ক্রিকেটের বড় বাজার ভারত। এরপরই অবস্থান অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ডের। এই তিন দেশই আইসিসির আয়োজনে প্রাধান্য পায়। আগামী আড়াই বছরে ভারতে সীমিত ওভারের দুই ফরম্যাটের দুটি বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হবে। নিলাম প্রক্রিয়া আলোর মুখ দেখলে এমন সুযোগ আর পাবে না ভারত। সৌরভ গাঙ্গুলি, জয় শাহরা আইসিসির নিলাম প্রক্রিয়ায় বাধ সাধার বিষয়টি তাই অযৌক্তিক মনে না-ও হতে পারে!

পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা এবং মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর ও ওমানের মত ছোট দেশ অবশ্য আইসিসির নিলাম প্রক্রিয়ার পক্ষে।



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *