Onus of secularism is not on Left Front only: Sreelekha Mitra


সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ধর্মনিরপেক্ষতার দায় কি বামেদের একার? বাকি রাজনৈতিক দলগুলির ছবিটা কি আদৌও অন্যরকম? জোটের ব্রিগেডে হঠাৎই তাল কাটা প্রসঙ্গে এবার বামেদের সমর্থনে সুর চড়ালেন শ্রীলেখা মিত্র (Sreelekha Mitra)। একগুচ্ছ ছবি পোস্ট করে বুঝিয়ে দিতে চাইলেন, কোনও দলই ধর্মনিরপেক্ষতার ‘মুখোশ’ চাপাতে বাকি রাখেনি।

গত রবিবার ভরা ব্রিগেডে ইন্ডিয়ান সেকুলার ফ্রন্টের প্রধান আব্বাস সিদ্দিকি মঞ্চে উঠতেই ছন্দপতন ঘটে। অধীর চৌধুরীর ভাষণের মাঝেই আব্বাসকে স্বাগত জানাতে প্রবল উচ্ছ্বাসে ফেটে পড়ে জনতা। বাধ্য হয়েই ভাষণ থামিয়ে দেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি। পরে এসে পরিস্থিতি সামাল দেন বিমান বসু। এরপরই আইএসএফ-কংগ্রেস অন্তর্কলহের ছবিটা বেরিয়ে পড়ে।অধীর চৌধুরীর উপস্থিতিতেই আব্বাস বলে দেন, “তোষণের নয়, অংশীদারির রাজনীতি করতে এসেছি।” তারপর থেকেই বিরোধীদের কটাক্ষের মুখে পড়তে হচ্ছে সংযুক্ত মোর্চাকে। বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ জোটের ব্রিগেডকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করে বলেন, “পশ্চিমবঙ্গকে গ্রেটার বাংলাদেশ বানানোর চক্রান্ত চলছে।” এবার ব্রিগেডের সেই ঘটনা নিয়ে একটি তাৎপর্যপূর্ণ পোস্ট করলেন শ্রীলেখা। যিনি নিজেও স্বতঃস্ফূর্তভাবে হাজির ছিলেন ব্রিগেডে।

[আরও পড়ুন: ‘আমাদের রক্ত বেচে আত্মনির্ভর ভারত হবে?’ গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে মোদিকে তোপ মিমির]

এদিন ফেসবুকে অভিনেত্রী লেখেন, “সব দায় বামেদের? ধর্ম গেল ধর্ম গেল না করে অধিকারের কথা বলুন। গর্জে উঠুন। ধর্মের আফিম অনেক হল এবার বাঁচার কথা ভাবুন।” এরই সঙ্গে তুলে ধরেছেন বেশ কিছু ছবি। যেখানে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাদেরই নিজেদের ধর্মনিরপেক্ষ বলে তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন। নরেন্দ্র মোদি থেকে রাজনাথ সিং, কৈলাস বিজয়বর্গীয়, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, লকেট চট্টোপাধ্যায়, মুকুল রায়- তালিকা থেকে কেউই বাদ পড়েননি। সেই কারণেই শ্রীলেখার দাবি, ধর্মনিরপেক্ষতা ও তোষণের রাজনীতি নিয়ে শুধু বামেদের কাঠগড়ায় তোলা যুক্তিহীন।

Sob daye bameder? Dhormo gelo dhormo gelo na kore odhikarer katha bolun, gorje uthun, dhormer apheem onek holo ebar bnachar katha bhabun,… Bakita picture description

Posted by Sreelekha Mitra on Monday, 1 March 2021

ব্রিগেড (Brigade) প্যারেড গ্রাউন্ড থেকে ‘সংবাদ প্রতিদিন’ ডিজিটালকে শ্রীলেখা জানিয়েছিলেন, সক্রিয় রাজনীতিতে আসার আপাতত কোনও পরিকল্পনা নেই তাঁর। তবে জোটের প্রার্থী হিসেবে যাঁরা নির্বাচনী যুদ্ধে নামবেন, তাঁদের পাশে থাকবেন। একইসঙ্গে তৃণমূল-বিজেপিতে দলে দলে তারকাদের যোগ দেওয়াকে কটাক্ষ করেন তিনি। সোমবারই যেমন অভিনেত্রী শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায় গেরুয়া শিবিরে নাম লেখানোর পর ফের আক্রমণাত্মক মেজাজে একটি পোস্ট করেন শ্রীলেখা। লেখেন, “যে বা যারা যে দলেই যোগ দিচ্ছেন প্লিজ মানুষের জন্য কাজ করতে চাই বলে অসহায় মানুষকে আর বিভ্রান্ত করবেন না। এক অসহায় মানুষের বিনীত আবেদন।” রাজনীতির আঙিনায় পা না দিয়েও ‘খেলা’ নিঃসন্দেহে জমিয়ে তুলেছেন শ্রীলেখা।

[আরও পড়ুন: কোন পার্টিতে যোগ দেবেন? ভিডিও পোস্ট করে জানালেন ঋতাভরী]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ

নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *