Bollywood actor Ajay Devgn appeals to save child who suffering from Rare disease । Sangbad Pratidin


Published by: Biswadip Dey |    Posted: April 15, 2021 12:31 pm|    Updated: April 15, 2021 12:31 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রুপোলি পরদায় তাঁর অভিনয়ের খ্যাতি দেশজোড়া। কিন্তু সমাজসেবামূলক কাজেও তিনি যে অগ্রণী তা অনেকের অজানা। বহুবার দরিদ্র, অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে দেখা গিয়েছে তাঁকে। এর মধ্যে গত বছর লকডাউনের (Lockdown) সময় তাঁর সমাজসেবীর রূপ দেখেছিল দেশ। এবার ফের বিরল অসুখে ভোগা এক শিশুর চিকিৎসার জন্য এগিয়ে আসতে দেখা গেল জাতীয় পুরস্কারজয়ী অভিনেতা অজয় দেবগণকে (Ajay Devgn)।

আয়াংশ গুপ্তা নামের ওই ছোট্ট ছেলেটি ‘স্পাইনাল মাস্কুলার অ্যাট্রফি’ নামের এক অত্যন্ত বিরল মেরুদণ্ডের অসুখে ভুগছে। এই অসুখের চিকিৎসা অত্যন্ত ব্যয়বহুল। ১৬ কোটি টাকা প্রয়োজন। এই অবস্থায় এগিয়ে এসেছেন অজয়। টুইটারে একটি পোস্ট করে সকলকে যথাসাধ্য সাহায্য়ের জন্য আবেদনও করেছেন তিনি।
টুইট করে অজয় জানিয়েছেন, ‘স্পাইনাল মাস্কুলার অ্যাট্রফি’ অসুখটির চিকিৎসার জন্য যে ওষুধ প্রয়োজন তা বিশ্বের সবচেয়ে দামি ওষুধ। তিনি লেখেন, ”আপনাদের সকলের অনুদান ওর সাহায্যে আসবে।” সেই সঙ্গে ডোনেশন লিংক কমেন্টেও দিয়ে দেন তিনি।

[আরও পড়ুন: পয়লা বৈশাখে দর্শকদের ‘সারপ্রাইজ’ দেবেন দেব, জিৎ! নতুন বছরে কী উপহার ভক্তদের?]

প্রসঙ্গত, গত বছর লকডাউনের সময় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির দৈনিক শ্রমিকদের সাহায্যার্থে ৫১ লক্ষ টাকা অনুদান দিয়েছিলেন অজয়। শুধু তাই নয়, ধারাভি বসতিতে আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য অক্সিজেন সিলিন্ডার ও ভেন্টিলেটরের খরচও বহন করেছিলেন বলি তারকা। এই ভাবে অতিমারীর সময় বারবার বিপন্ন মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি।

এই মুহূর্তে কেরিয়ারের অন্যতম সেরা সময় কাটাচ্ছেন অজয় দেবগণ। এই মুহূর্তে তিনি ব্যস্ত ‘মে ডে’ ছবির শুটিংয়ে। ছবিটির পরিচালনাও করেছেন তিনি। সেই সঙ্গে মুখ্য ভূমিকাতেও থাকছেন। ছবিতে তাঁর সহ অভিনেতা হিসেবে থাকছেন কিংবদন্তি অভিনেতা অমিতাভ বচ্চন। এর সঙ্গে ‘রেড ২’ ছবির কাজও শুরু করেছেন তিনি। এই ব্যস্ততার মধ্যেই এক দুঃস্থ শিশুর চিকিৎসার জন্য এগিয়ে এলেন বলিউড তারকা।

[আরও পড়ুন: হলিউডে হুমা কুরেশির ডেবিউ, প্রকাশ্যে ‘আর্মি অফ দ্য ডেড’ ছবির ট্রেলার]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ

নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *