শেষ বিকেলে আলো ছড়ালেন মুশফিক-সোহান-মিরাজ


শেষ বিকেলে আলো ছড়ালেন মুশফিক-সোহান-মিরাজ

কাতুনায়েকেতে বিসিবি লাল দল ও বিসিবি সবুজ দলের মধ্যকার প্রস্তুতি ম্যাচে দারুণ দিন কাটিয়েছে লাল দল। দুই দিনের ম্যাচের প্রথম দিনের খেলায় মাত্র একটি উইকেট হারিয়ে ৩১৪ রান জড়ো করেছে তামিমের নেতৃত্বাধীন একাদশটি।

শেষ বিকেলে আলো ছড়ালেন মুশফিক-সোহান-মিরাজ

প্রথমে ব্যাট করতে নামে লাল দল। দলের হয়ে ব্যাটিং সূচনা করেন তামিম ও সাইফ। তামিম ৬৩ রানের ইনিংস খেলে অবসরে যান। লাল বলের খেলা হলেও এদিন একটু মারকুটেই ছিলেন বাঁহাতি ওপেনার। তামিম যখন রিটায়ার্ড হার্ট হিসেবে সাজঘরের দিকে ফিরছেন, সাইফের ইনিংস তখনও অর্ধশতকের অর্ধেকে পৌঁছায়নি।

Also Read – টেস্টে ধৈর্য নিয়ে খেললেই সাফল্য আসবে : শান্ত

তবে তরুণ এই ওপেনারও পেয়ে যান অর্ধশতকের দেখা। এরপর তামিমের মত তিনিও রিটায়ার্ড হার্ট হিসেবে প্যাভিলিয়নে ফেরেন। তার আগে সাইফের ব্যাট থেকে আসে ৫২ রান। তামিমের পর তিন নম্বরে ক্রিজে নেমেছিলেন যিনি, সাইফের পর সেই নাজমুল হোসেন শান্তও পেয়েছেন অর্ধশতকের দেখা। ৫৩ রান করে তিনিও রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে মাঠ ছাড়েন। শেষ সেশনে অর্ধশতক পান মুশফিকুর রহিম।

মুশফিকের ব্যাট থেকে আসে দলীয় সর্বোচ্চ ৬৬ রান। নুরুল হাসান সোহান ৪৮ রান করেন, আউট হননি তিনিও। মেহেদী হাসান মিরাজের ব্যাট থেকে আসে ২৪ রান। আউট হয়েছেন কেবল তাইজুল ইসলাম। ২ রান করে শুভাগত হোমের বলে লিটন দাসের স্ট্যাম্পিংয়ের শিকার হন তিনি, দিনের শেষ বলে।

৭৯.২ ওভার ব্যাট করে লাল দল দিন শেষ করেছে ৩১৪ রান নিয়ে।

বিসিবি লাল দল : তামিম ইকবাল-(অধিনায়ক), সাইফ হাসান, নাজমুল হোসেন, মুশফিকুর রহিম, নুরুল হাসান-(উইকেটরক্ষক), মেহেদী হাসান মিরাজ, তাইজুল ইসলাম, তাসকিন আহমেদ, আবু জায়েদ, খালেদ আহমেদ, সাপোর্ট স্টাফ।

বিসিবি সবুজ দল : সাদমান ইসলাম, লিটন দাস, মুমিনুল হক-(অধিনায়ক), মোহাম্মদ মিঠুন, ইয়াসির রাব্বি, শুভাগত হোম, নাঈম হাসান, শরিফুল ইসলাম, এবাদত হোসেন, শহিদুল ইসলাম, মুকিদুল মুগ্ধ।

স্কোর

বিসিবি লাল দল : ৩১৪/১ (৭৯.২ ওভার)
তামিম ৬৩* রিটায়ার্ড হার্ট, সাইফ ৫২* রিটায়ার্ড হার্ট, শান্ত ৫৩* রিটায়ার্ড হার্ট, মুশফিক ৬৬* রিটায়ার্ড হার্ট, সোহান ৪৮* রিটায়ার্ড হার্ট, মিরাজ ২৪*



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *