latest

BJP leader Amit Malviya questioned TMC MP Nusrat Jahan if she lied about her marriage ।Sangbad Pratidin


সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নিখিলের (Nikhil Jain) সঙ্গে নুসরতের ‘দাম্পত্য’ সম্পর্ক নিয়ে নানা মহলে চর্চা তুঙ্গে। তারই মাঝে কার্যত বোমা ফাটান নুসরত জাহান। বিয়ে বৈধ নয় বলেই বিবৃতিতে দাবি করেন তিনি। আর তারপর থেকে নানা প্রশ্নের সম্মুখীন বসিরহাটের তৃণমূল সাংসদ। এবার তাতে লাগল রাজনীতির রং। নুসরতের সম্পর্ক নিয়ে খোঁচা দিলেন বিজেপি নেতা অমিত মালব্য।

বসিরহাট লোকসভা কেন্দ্র থেকে সাংসদ হিসাবে জয়ী হওয়ার পর প্রথমবার দিল্লিতে গিয়ে আলোচনার শীর্ষে চলে এসেছিলেন নুসরত। কারণ, সেই সময় ‘বিয়ে’ হয়ে গিয়েছিল তাঁর। সংসদে নিখিলের নামাঙ্কিত চূড়া, সিঁদুর পরে দেখা গিয়েছিল তাঁকে। শপথ নেওয়ার সময় নুসরত জাহান রুহি জৈন বলেই দাবি করেন বসিরহাটের তৃণমূল সাংসদ। শপথ নেওয়ার সেই ভিডিও টুইট করেন অমিত মালব্য (Amit Malviya)। তিনি লেখেন, “বিয়ে করেছেন নাকি লিভ ইন করতেন নুসরত, সেটা ব্যক্তিগত ব্যাপার। তা নিয়ে কেউ আলোচনা করতে রাজি নয়। তবে তিনি নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি। সংসদে তিনি নিজেকে নিখিল জৈনের বিবাহিতা স্ত্রী বলে দাবি করেন। তবে কি তিনি সংসদে দাঁড়িয়ে মিথ্যা বলেছেন?” যদিও অমিত মালব্যর এই টুইটের কোনও পালটা প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

[আরও পড়ুন: সুশান্তের বাবার আবেদন খারিজ, ‘ন্যায়: দ্য জাস্টিস’ ছবির রিলিজে স্থগিতাদেশ দিল না আদালত]

নুসরত জাহান (Nusrat Jahan) বুধবারই তাঁর বিবৃতিতে বোমা ফাটান। তুরস্কে এলাহি ‘বিয়ে’, কলকাতায় গ্র্যান্ড রিসেপশনের পরেও তিনি দাবি করেন নিখিলের সঙ্গে লিভ ইন করতেন। নুসরত বিবৃতিতে উল্লেখ করেন, তাঁর বিয়ে বৈধ নয়। তাই বিবাহ বিচ্ছেদের কোনও প্রশ্নই ওঠে না। এছাড়াও নিখিলের বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ করেন তিনি। দাবি করেন, তাঁর গয়না হাতিয়ে নিয়েছেন নিখিল। একটি ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নিয়মিত নিখিল ব্যবহার করেন বলেও দাবি করেন নুসরত। পুলিশের দ্বারস্থ হওয়ার হুঁশিয়ারি তৃণমূল সাংসদের।

বিয়ে না হলে এখনও লোকসভার ওয়েবসাইটে কেন নিখিলের নাম স্বামী হিসাবে জ্বলজ্বল করছে, সেই প্রশ্ন উঠছে। নেটিজেনরাও খোঁচা দিতে ছাড়ছেন না নুসরতকে। কেন বিপুল টাকা খরচ করে লিভ ইন করতে গেলেন, সেই প্রশ্ন তুলছেন কেউ কেউ। অনেকেই আবার নিখিলের বস্ত্র বিপণীর জামাইষষ্ঠীর পুরনো বিজ্ঞাপন শেয়ার করে খোঁচা দিয়েছেন তৃণমূল সাংসদকে।

[আরও পড়ুন: শেষ জীবনযুদ্ধ, প্রয়াত পরিচালক বুদ্ধদেব দাশগুপ্ত]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ

নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে





Source link